আ’লীগ কার্যালয়ের সামনে বোমা বিস্ফোরণ : হেফাজতের হামলা

    0
    394

    ঢাকা, ০৫ মে : আজ রবিবার রাজধানীর বঙ্গবন্ধু এভিনিউয়ে আওয়ামী লীগ কার্যালায়ের সামনে ১০ থেকে ১৫টি হাতবোমা বিস্ফোরণ ঘটানো হয়েছে। এর পরপরই কয়েকজনকে রক্তাক্ত অবস্থায় ভ্যানে করে সেখান থেকে সরিয়ে নিতে দেখা গেছে। এর আগে বঙ্গবন্ধু এভিনিউতে আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় অফিসে হামলা চালিয়েছে হেফাজত কর্মীরা।
    প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, আজ রবিবার বেলা পৌনে ২টার দিকে হেফাজত কর্মীরা মিছিল নিয়ে যখন মতিঝিলে সমাবেশে অংশ নিতে যাচ্ছিলেন, সেই সময় হঠাৎ বিস্ফোরণ শুরু হয়। এ সময় গয়েকটি গাড়ি ভাঙচুর করা হয় বলেও প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান। ঘটনাস্থলে একজন প্রতক্ষ্যদর্শী জানান, পুলিশ টিয়ারশেল ছুড়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণের চেষ্টা চালাচ্ছে।
    এদিকে বঙ্গবন্ধু এভিনিউতে আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় অফিসে হামলা চালিয়েছে হেফাজত কর্মীরা। এ সময় উভয় পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। এতে একজন সংবাদ কর্মীসহ ৫ জন গুরুতর আহত হয়েছেন। এ সময় বেশ কয়েকজন হেফাজত কর্মীকে আটক করেছে পুলিশ। বেলা দেড়টার দিকে হেফাজতের কিছু নেতাকর্মী বঙ্গবন্ধু এভিনিউতে একটি গাড়িতে আগুন দিলে তাদের ধাওয়া দেয় আওয়ামী লীগ কর্মীরা। পরে হেফাজত কর্মীরা সংগঠিত হয়ে ফিরে এলে উভয় পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষ বাধে। এ পরিস্থিতিতে সাউন্ড গ্রেনেড, টিয়ারশেল ও রাবার বুলেট ছুঁড়ে বঙ্গবন্ধু এলাকা থেকে হেফাজত কর্মীদের হটিয়ে দেয় পুলিশ। এ সময় পুলিশের গুলিতে এক পথচারী আহত হন। আর মওলানা ভাসানি স্টেডিয়ামের ২ নম্বর গেটের কাছে আওয়ামী  লীগ কর্মীদের পিটুনিতে গুরুতর আহত হন ৩ হেফাজত কর্মী। দুপুর ২টায় এ রিপোর্ট লেখার সময় পর্যন্ত বঙ্গবন্ধু এভিনিউ ও এর আশপাশে বিপুল সংখ্যক পুলিশ-র‌্যাব মোতায়েন ছিলো। বিরাজ করছিলো উত্তেজনাকর পরিস্থিতি। ফুলবাড়িয়া, গোলাপ শাহ মাজার, বায়তুল মোকাররম এলাকায় আওয়ামী লীগ কর্মী ও পুলিশের সঙ্গে ঢিল ছোঁড়াছুঁড়ি চলছিলো হেফাজত কর্মীদের।