কমলগঞ্জ বাগানে সংঘর্ষের ঘটনায় চিফ হুইপের অনুদান

    0
    226

    আমারসিলেট 24ডটকম ,২৬সেপ্টেম্বর,শাব্বির এলাহী : মৌলভীবাজারের কমলগঞ্জ উপজেলার সীমান্তবর্তী ধলই চা বাগানে ফুটবল খেলা নিয়ে সংর্ঘষের ঘটনায় চা শ্রমিকদের ঘরে অগ্নিসংযোগের কারণে ১৩টি পরিবার খোলা আকাশের নিচে রাত কাটাচ্ছেনসোমবার রাত ৮ টায় ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে স্থানীয় সংসদ সদস্য ও জাতীয় সংসদের চিফ হুইপ উপাধ্যক্ষ মো: আব্দুস শহীদ এমপি সরেজমিন পরিদর্শন করে ব্যক্তিগত তহবিল থেকে তাৎক্ষনিকভাবে নগদ ১৬ হাজার টাকা ক্ষতিগ্রস্থ পরিবারদের  প্রদান করেছেন। 

    জানা যায়সোমবার বিকাল ৩ টায় ধলই চা বাগানে ফুটবল খেলাকে কেন্দ্র করে পাত্রখোলা ও ধলই চা বাগানে সংর্ঘষ বাধেএসময় উত্তেজিত হয়ে পাত্রখোলা চা বাগানের শ্রমিকরা ধলই চা বাগানের শ্রমিক বস্তিতে হামলা চালিয়ে ১৩টি বসত ঘরে অগ্নিসংযোগ করে১৩টি পরিবারের ঘর পুড়ে যাওয়ায় শ্রমিক পরিবারগুলো খোলা আকাশের নিচে বসবাস করছেগত সোমবার রাতে পরিবারগুলোকে খাবারের জন্য চিফ হুইপ উপাধ্যক্ষ মোঃ আব্দুস শহীদ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে তাৎক্ষনিকভাবে ক্ষতিগ্রস্থ ও আহত পরিবার গুলোকে ১৬ হাজার টাকা অনুদান দেন

    এসময় উপস্থিত ছিলেন মৌলভীবাজার জেলা প্রশাসক মো: কামরুল হাসান, পুলিশ সুপার তোফায়েল আহমদ, কমলগঞ্জ ইউএনও মোহাম্মদ জাহিদুল ইসলাম মিঞা, কমলগঞ্জ থানার ওসি নীহার রঞ্জন নাথ, মাধবপুর ইউপি চেয়ারম্যান পুষ্প কুমার কানু, ধলই চা বাগান ব্যবস্থাপক বাবুল সরকার, এনটিসির উর্ধ্বতন কর্মকর্তা, আওয়ামীলীগ নেতৃবৃন্দ ও চা শ্রমিক নেতৃবৃন্দমঙ্গলবার বিকেলে কমলগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ নীহার রঞ্জন নাথ জানান, পাত্রখোলা ও ধলই চা বাগানের ম্যানেজম্যান্ট সমঝোতা বৈঠক করছেনআজ বুধবার পুলিশ প্রশাসন ও স্থানীয় নেতৃবৃন্দকে নিয়ে সমঝোতার বৈঠক বসবেতিনি বলেন ২টি চা বাগান এখন শান্ত রয়েছেটহল পুলিশ খবরদারী করছে