কায়সারের বিরুদ্ধে মানবতাবিরোধী ১৬টি অভিযোগ

    0
    259

    আমারসিলেট 24ডটকম , ২২সেপ্টেম্বর  : সাবেক এরশাদ সরকারের কৃষি প্রতিমন্ত্রী সৈয়দ মো. কায়সারের বিরুদ্ধে তদন্ত সংস্থা গণহত্যা, হত্যা, ধর্ষণসহ ১৬টি অভিযোগ পেয়েছে। মানবতাবিরোধী অপরাধের বিষয়ে তার বিরুদ্ধে তদন্ত শেষ হয়েছে। তদন্ত সংস্থা জানিয়েছে, আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনালে রাষ্ট্রপক্ষের প্রধান আইনজীবীর কার্যালয়ে আজই এ তদন্ত প্রতিবেদন জমা দেয়া হবে। আজ রাজধানীর ধানমণ্ডিতে তদন্ত সংস্থার সেফ হোমের কার্যালয়ে এক সংবাদ ব্রিফিংয়ে এ তথ্য জানান সংস্থার সমন্বয়ক আবদুল হান্নান খান।
    তদন্ত সংস্থা জানায় মানবতাবিরোধী অপরাধের অভিযোগে কায়সারের বিরুদ্ধে ২০১২ সালের ২৮ মার্চ তদন্ত শুরু হয়। চলতি বছরের ১৫ মে রাষ্ট্রপক্ষের আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে কায়সারকে গ্রেপ্তারের নির্দেশ দেন আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনাল-২, ২১ মে তাকে গ্রেপ্তার করা হয়। তদন্ত শেষ না হওয়া পর্যন্ত তাকে আটক রাখার নির্দেশ দেন ট্রাইব্যুনাল। তবে শারীরিক অবস্থা বিবেচনা করে গত ৫ আগস্ট কায়সারকে শর্ত সাপেক্ষে জামিন দিয়েছেন আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনাল-২,

    ট্রাইব্যুনালের আদেশে বলা হয়, কায়সারের শারীরিক অবস্থা বিবেচনায় নিয়ে তাকে জামিন দেয়া হলো। তবে শর্ত ভঙ্গ করলে জামিন বাতিল হয়ে যাবে। জামিনের আদেশে দেয়া শর্ত অনুযায়ী, যদি কায়সারের পাসপোর্ট থাকে তাহলে তা ট্রাইব্যুনালের রেজিস্ট্রারের কাছে জমা দিতে হবে। তিনি ট্রাইব্যুনালের অনুমতি ছাড়া বনানীর বাসার বাইরে যেতে পারবেন না। তিনি হবিগঞ্জসহ দেশের কোথাও ভ্রমণ করতে পারবেন না। জামিনে থাকার সময়ে তিনি কোনো রাজনৈতিক দল বা নেতার সঙ্গে সাক্ষাৎ এবং গণমাধ্যমের সামনে কথা বলতে পারবেন না। আদেশে ট্রাইব্যুনাল তার ব্যক্তিগত ফোন নম্বর রেজিস্ট্রারের কাছে দিতে এবং তার বাসায় এ মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা গেলে তাকে সহযোগিতা করতে বলেছেন।