জার্মান দল বায়ার লেভারকুসেনকে ৪-২ গোলে হারিয়েছে

    0
    273

    আমারসিলেট 24ডটকম , সেপ্টেম্বর  : গত রাতে জার্মান দল বায়ার লেভারকুসেনকে ৪-২ গোলে হারিয়েছে ইউনাইটেড। জোড়া গোল করেছেন রুনি। এর মধ্য দিয়ে ইউনাইটেডের হয়ে ২৭ বছর বয়সী ইংলিশ স্ট্রাইকারের গোলসংখ্যা দাঁড়াল ২০০।তিনি ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের তারকা স্ট্রাইকার। আর তাঁর ডাবল সেঞ্চুরিটা রানের নয়, গোলের।

    ইউনাইটেডের সর্বকালের গোলদাতার তালিকায় রুনি এখন চারে। তাঁর ওপরে রয়েছেন ববি চার্লটন (২৪৯), ডেনিস ল (২৩৭) ও জ্যাক রাউলি (২১১)। ইউনাইটেডের হয়ে ৪০৬তম ম্যাচে ডাবল সেঞ্চুরি করা রুনি স্বাভাবিকভাবেই উচ্ছ্বসিত, ‘আমি গর্বিত। ইউনাইটেডের মতো ক্লাবের হয়ে ২০০ গোল করাটা আনন্দের। আশা করছি, আরও বহু দূর এগিয়ে যেতে পারব।’

    কয়েক মাস ধরেই গুঞ্জন চলছিল, ওল্ড ট্র্যাফোর্ডে সুখী নন রুনি। ইউনাইটেডের দায়িত্ব ছাড়ার আগে অ্যালেক্স ফার্গুসন জানিয়ে গিয়েছিলেন, ক্লাব ছাড়তে চেয়েছিলেন দলের সেরা এই স্ট্রাইকার। এর ওপর নতুন কোচ ডেভিড ময়েস দায়িত্ব নিয়েই ঘোষণা দেন, রুনিকে খেলতে হবে রবিন ফন পার্সির ছায়া হিসেবে। মুখে কিছু না বললেও স্বাভাবিকভাবেই ক্ষুব্ধ ছিলেন রুনি। এদিকে তাঁকে পাওয়ার প্রবল আগ্রহ দেখায় চেলসি। হোসে মরিনহো তো বিবৃতি দিয়ে প্রকাশ করেন ইউনাইটেড ফরোয়ার্ডের প্রতি তাঁর আগ্রহের কথা।

    এত কিছুর পরও গুঞ্জনটা থেমে নেই। ক্লাবের হয়ে ২০০তম গোল করার পরও উঠে এল পুরোনো প্রসঙ্গটা। কৌশলী রুনির জবাব শুনুন, তিনি বলেন, আমি শুধু ফুটবল নিয়েই ভাবতে চাই। আগের মৌসুমগুলোর মতো এবার নিজের খেলার প্রতি মনোযোগী আমি। এখানকার সমর্থকেরা অসাধারণ, সব সময় উষ্ণ অভ্যর্থনা পাই। আশা করছি, রাতের মতো পারফরম্যান্স দিয়ে সবার প্রত্যাশার প্রতিদান দিতে পারব।

    ক্লাব ছাড়ার গুঞ্জনকে পেছনে ফেলে এ মৌসুমে দুর্দান্ত খেলছেন রুনি। গত মাসে চেলসির বিপক্ষে গোলশূন্য ড্র হওয়া ম্যাচের সেরা খেলোয়াড় নির্বাচিত হন তিনি। গত শনিবার ক্রিস্টাল প্যালেসের বিপক্ষে ২-০ গোলে জেতে ইউনাইটেড। ওই ম্যাচে দুর্দান্ত ফ্রি কিক থেকে একটি গোল করেন রুনি।

    রুনিকে ফন পার্সির ছায়া হয়ে থাকতে বলা ময়েসের সুরও পাল্টে গেছে। ম্যাচ শেষে সংবাদ সম্মেলনে ইউনাইটেড কোচ বলেছেন, রুনিকে ইউনাইটেডের সর্বকালের সেরাদের একজন হিসেবেই তিনি দেখেন। তাঁর আশা, একদিন ইউনাইটেডের সর্বোচ্চ গোলদাতাও হবেন রুনি। সূত্রথেকে