নিষিদ্ধ হলেও হবিগঞ্জ লাইব্রেরীতে বিক্রি হচ্ছে নোট বই

    0
    270
    তফিদুর রহমান তালুকদার তৌফিক :নিষিদ্ধ হলেও হবিগঞ্জের লাইব্রেরীগুলোতে বিক্রি হচ্ছে নোট বই। এ ক্ষেত্রে নজর নেই প্রশাসনের। সৃজনশীল প্রশ্ন পদ্ধতি চালু করার মূল লক্ষ্য ছিল শিক্ষার মানোন্নয়ন করা। কিন্তু জেলার বইয়ের দোকানগুলোতে ঘুরে দেখা গেছে, লেকচার, জুপিটার, পাঞ্জেরী, অনুপম, গ্যালাক্সি, পুঁথি নিলয়, নিউ পপি, নিউ স্টার, মেগদুত, মিশন, কম্পিটার, স্টার ও নেপচুনসহ বিভিন্ন নামে অবৈধ নোট-গাইড অবাধে বিক্রি হচ্ছে।
    শিক্ষকরাও ছাত্র ছাত্রীদেরকে নোট ও গাইড বই কিনতে বাধ্য করছেন। দ্বিতীয় শ্রেণী থেকে অষ্টম শ্রেণীর শিক্ষার্থীদের জন্য বিভিন্ন প্রকাশনীর অবৈধ নোট ও গাইড বই বিক্রি হলেও দেখার যেন কেই নেই। বিভিন্ন প্রকাশনীর প্রতিনিধিরা শিক্ষক- শিক্ষিকাদের নিয়ে রমরমা প্রচারণাও চালিয়ে যাচ্ছেন। প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষক শিক্ষিকাদের দিয়ে ছাত্র ছাত্রীদের কাছে অবৈধ নোট ও গাইড বিক্রয় হচ্ছে বেশী।
    এছাড়াও সরকারের বিনা মূল্যে বিতরণের জন্য দেয়া বইয়ে হবিগঞ্জের পুস্তক বাজার ছেয়ে গেছে। এক শ্রেণীর অসাধু পুস্তক ব্যবসায়ী সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের যোগসাজশে এসব বই কৌশলে বাজারজাত করছে। বর্তমানে হবিগঞ্জে হাত বাড়ালেই পাওয়া যায় বিনা মূল্যে বিতরণের জন্য সরকারী বোর্ড বই। অনুসন্ধানে দেখা যায়, প্রতিটি উপজেলা সহ হবিগঞ্জ শহরের লাইব্রেরীগুলোতে এসব বই বিক্রি হচ্ছে।
    এক শ্রেণীর অসাধু ব্যবসায়ী কৌশলে প্রতি সেট বই ৫০০ থেকে ৭০০ টাকা মূল্যে বিক্রি করছে। নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক হবিগঞ্জের এক বই ব্যবসায়ী বলেন, ২য় থেকে অষ্টম শ্রেণী পর্যন্ত নোট ও গাইড বই বিক্রয় অবৈধ। কিন্তু সরকার এদিকে নজর না দেয়ায় ছাত্র ছাত্রীদের হাতে শিক্ষকরা নোট ও গাইড তুলে দিচ্ছেন। এতে তাদের শিক্ষার মান নিম্নমুখী হচ্ছে। বিভিন্ন প্রকাশনীর প্রতিনিধিরা মোটর সাইকেল নিয়ে বিভিন্ন উপজেলা ঘুরে নিম্নমানের অবৈধ নোট ও গাইড বিক্রি করছে।
    হবিগঞ্জ, নবীগঞ্জ, বানিয়াচং, মাধবপুর, চুনারুঘাট, আজমিরীগঞ্জ, বাহুবল ও লাখাইয়ে বেশ কয়েকটি প্রকাশনী অবৈধ নোট ও গাইড বিক্রির জন্য শতাধিক প্রতিনিধি প্রচারণায় নেমেছে। শিক্ষকরা নিষিদ্ধ নোট ও গাইড বইয়ের দাম ৭৫ থেকে ৮৫০ টাকা পর্যন্ত নিচ্ছে।
    প্রতিষ্ঠানের প্রতিনিধিরা অবৈধ নোট ও গাইড বইয়ের প্রচারণা চালাচ্ছে জেনেও প্রশাসন নীরব ভূমিকা পালন করছে।এতে শিক্ষার মান নিুমুখি হওয়ার আশংকা করছেন সচেতন মহল।