পুলিশ দম্পতি খুনের ঘটনায়কিছু কিছু তথ্যে এখনও বিভ্রান্তি রয়েছে

    0
    265

    আমার সিলেট ডেস্ক,২৩ আগস্ট :পুলিশ দম্পতি খুনের ঘটনায় আটক ঐশী রহমান, গৃহকর্মী সুমি ও ঐশীর ঘনিষ্ঠ বন্ধু মিজানুর রহমানের পাঁচ দিনের রিমান্ডের শেষ দিন আজ । আজ শুক্রবার রিমান্ডের শেষ দিনের জিজ্ঞাসাবাদ শুরু হয়েছে। মহানগর গোয়েন্দা পুলিশের কর্মকর্তারা তাদের জিজ্ঞাসাবাদ করছেন। অথচ পুলিশ বলছে, রিমান্ডে ঐশী রহমান এখনো বিভ্রান্তিমূলক তথ্য দিচ্ছে। সে কারণে আগামীকাল শনিবার আদালতে হাজির করে আবারও রিমান্ডের আবেদন করবে তারা।  এ বিষয়ে গোয়েন্দা কর্মকর্তারা বলেছেন, শনিবার তাদের আদালতে পাঠানো হবে। পাশাপাশি তাদের আবার রিমান্ডে নিতে আবেদন করা হবে।এছাড়াও ঐশীর আরো দুই বন্ধু জনি ও সাইদুলকে আটক করতে অভিযান অব্যাহত রয়েছে বলে জানান গোয়েন্দা কর্মকর্তারা।

    পুলিশের কর্মকর্তারা বলেছেন, গত পাঁচ দিনের জিজ্ঞাসাবাদে খুনের কারণ, কারা জড়িত, তাদের নাম বলে দেয় ঐশী। তার এই জবানবন্দি আমরা ভিডিও আকারে রেকর্ড করি। ঐশীকে নিয়ে আমরা তাদের বাসাতেও যাই। তবে কিছু কিছু তথ্যে এখনও বিভ্রান্তি রয়েছে।
    গোয়েন্দা সূত্রটি জানায়, রিমান্ডে জিজ্ঞাসাবাদে ঐশী খুনের মোটিভ জানায়। বাবা-মায়ের একমাত্র মেয়ে মাদকাসক্ত ঐশীর অবাধ চলাফেরায় বাধ সাধলে তাদের খুনের পরিকল্পনা করে। পরে তার বন্ধুদের দিয়ে এ পরিকল্পনা বাস্তবায়ন করে। খুনের সঙ্গে জড়িত আরো দুই বন্ধু পলাতক জনি ও সাইদুলের নাম প্রকাশ করে ঐশী।
    কর্মকর্তারা বলছেন, আমরা সেই বিভ্রান্তি দূর করতে পঞ্চম দিনের জিজ্ঞাসাবাদ করছি। যদি এই বিষয়টি পরিস্কার না হয়, তবে আমরা আবার রিমান্ডের আবেদন জানাবো। তবে কী সেই বিভ্রান্তি, জানতে চাইলে কর্মকর্তারা বলেন, তদন্তের স্বার্থে এখনি বলা যাচ্ছে না। তবে আমরা জানাবো। এদিকে, ঐশীর ঘনিষ্ঠ আরো দুই বন্ধু জনি ও সাইদুলকে আটকে অভিযান অব্যাহত রয়েছে। পুলিশ কর্মকর্তারা বলছেন, তাদের আটক করতে সব রকমের চেষ্টাই চালানো হচ্ছে।।