প্রথমবারের মতো স্বাধীনতা রানের আয়োজন সিলেট রানার্স ক্লাব’র

0
442
প্রথমবারের মতো স্বাধীনতা রানের আয়োজন সিলেট রানার্স ক্লাব'র
প্রথমবারের মতো স্বাধীনতা রানের আয়োজন সিলেট রানার্স ক্লাব'র

আফজাল হোসেন রুমেল, বড়লেখা প্রতিনধিঃ সিলেটে স্বাধীনতা দিবস উপলক্ষে শনিবার অনুষ্ঠিত হয়েছে ‘স্বাধীনতা রান ২০২২’। মহান স্বাধীনতা দিবস উপলক্ষে প্রথমবারের মতো স্বাধীনতা রানের আয়োজন করে সিলেট রানার্স ক্লাব নামের একটি প্ল্যাটফর্ম। ২৬শে মার্চ উপলক্ষে ২৬জন রানার্স সিলেট শহরের মূল সড়কপথে রানিং করেন। প্রতিযোগিতার মতো নয়। স্বাধীনতা দিবস উদযাপন করতেই ব্যতিক্রমী এই আয়োজন।

স্বাধীনতা দিবস উদযাপনে রানারদের সাথে সিলেট সাইক্লিং ক্লাবের সাইক্লিস্টরাও বাইসাইকেলে চড়ে অংশ নেন। স্বাধীনতা রান শুরু হয় সকাল সাতটায় নগরের চৌহাট্টা এলাকার কেন্দ্রীয় শহীদ মিনার প্রাঙ্গণ থেকে। এতে অংশ নেন সিলেট বিভাগের বিভিন্ন উপজেলার প্রায় অর্ধশত দৌড়বিদ। তাঁরা সিলেট নগরের বিভিন্ন এলাকার পাচ কিলোমিটার সড়ক প্রদক্ষিণ করেন। চোহাট্টা-নয়াসড়ক হয়ে জেলরোড-জিন্দাবাজার- লামাবাজার- শেখঘাট- তালতলা ঘুরে কীনব্রিজ এলাকায় আলী আমজাদের ঘড়ির নিচে এসে ‘স্বাধীনতা রান’ শেষ হয়।

আয়োজক সূত্রে জানা গেছে, ২০২০ সালের ২৬শে মার্চ যাত্রা শুরু করে সিলেট বিভাগের সবচেয়ে বড় সামাজিক প্ল্যাটফর্ম সেভ সিলেটের। তারই একটি প্রজেক্ট হচ্ছে সিলেট রানার্স ক্লাব। এই প্রজেক্টের মূল উদ্দেশ্য হচ্ছে “রানিং ফর ন্যাচার”। মানুষকে প্রকৃতির জন্য কাজ করতে উৎসাহিত করা ও পরিবেশের জন্য বিভিন্ন ধরনের কাজ করাই এই প্রজেক্টের মূল লক্ষ্য। সিলেটের মানুষকে স্বাস্থ্য সচেতন হিসেবে গড়ে তোলাও এই প্রজেক্টের একটি গুরুত্বপূর্ণ লক্ষ্য।

সেভ সিলেটের প্রতিষ্ঠাতা আয়ান মুমিনুল হক বলেন, ‘স্বাধীনতা রান’ কোনো প্রতিযোগিতা নয়, স্বাধীনতা দিবস উদ্‌যাপন করতেই এই আয়োজন। সেভ সিলেট প্ল্যাটফর্মটির দুই বছর আগে যাত্রা শুরু করলেও এবারই প্রথম স্বাধীনতা রানের আয়োজন করা হয়। সিলেট রানার্স ক্লাব প্ল্যাটফর্ম এর পক্ষ থেকে এখন থেকে নিয়মিত দৌড় প্রতিযোগিতার আয়োজন করা হবে ইনশাআল্লাহ। স্বাস্থ্য, শরীর ও মন সুস্থ রাখতে হাঁটাহাঁটি ও দৌড় খুবই উপকারী। এই বিষয়টিই মাথায় রেখে এই প্ল্যাটফর্ম এর পথ চলা।’