যাত্রা ও জুয়ার প্রতিবাদে কমলগঞ্জে গণ্যমান্যদের মতবিনিময়

    0
    214

    আমারসিলেট24ডটকম,১৩ডিসেম্বর,শাব্বির এলাহীযাত্রা, হাউজি বাম্পার, জুয়া ও অশ্লীল নৃত্য আয়োজনের প্রতিবাদে জুয়াড়ীদের রোষানলে মৌলভীবাজারের কুলাউড়া উপজেলার হাজীপুর ইউনিয়নের পীরের বাজারের ব্যবসায়ীসহ স্থানীয় এলাকাবাসী। জুয়াড়ীদের নিয়মিত প্রাণনাশের হুমকিতে নিরাপত্তাহীনতায় রয়েছেন সাধারন মানুষ। এ নিয়ে শুক্রবার (১২ ডিসেম্বর) রাত সাড়ে ৮টায় পীরের বাজারে শমশেনগরের সচেতন ব্যক্তিবর্গ পীরেরবাজারের ব্যবসায়ীসহ গন্যমান্য ব্যক্তিবর্গের সাথে মতবিনিময় করেন।

    মতবিনিময় সভায় হাজীপুর ইউপি চেয়ারম্যান মাহমুদ আলীর সভাপতিত্বে এবং রহমান খানের পরিচালনায় প্রধান অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন কমলগঞ্জ উপজেলার শমশেরনগর ইউপি চেয়ারম্যান মো. জুয়েল আহমদ। বিশেষ অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন শমশেরনগর উন্নয়ন পরিষদের আহবায়ক মো. আব্দুল গফুর, হাজীপুর ইউপির সাবেক চেয়ারম্যান মবশ্বির আলী, ব্যবসায়ী নেতা ইজ্জাদুর রহমান, সাবেক সাধারন সম্পাদক নজরুল হক আনোয়ার। বক্তব্য রাখেন মুক্তিযোদ্ধা আইয়ূব আলী, পীরেরবাজারের ব্যবসায়ী নেতা মো. রাজা মিয়া, মশহুর আহমদ, লাল মিয়া, ইউপি সদস্য আব্দুল মুনিম, মাওলানা আলতাফুর রহমান। উপস্থিত ছিলেন ইউপি সদস্য ফুরকান আলী, হবিব উল্যা, শওকত আলী, গুলজার আহমদ, নোমান আহমদ, মফিজ আলী, ডাঃ আজাদ মিয়াসহ এলাকার সর্ব সাধারন।

    সভায় শমশেরনগর ইউপি চেয়ারম্যান মো: জুয়েল আহমদ বলেন, পীরেরবাজারের ব্যবসায়ীসহ অত্র এলাকার সাধারন মানুষ শমশেরনগর বাজারে আতঙ্কে চলাফেরা না করে পূর্বের মতো চলাফেরা করার জন্য পারামর্শ দেন। পাশাপাশি তাদের কিছু হলে এ দায় নিবেন বলে চেয়ারম্যান পীরেরবাজার ব্যবসায়ী ও সাধারন মানুষকে আশ্বস্থ করেন।

    উল্লেখ্য-পীরের বাজার সংলগ্ন কমলগঞ্জ উপজেলার পতনউষার ইউনিয়নের বৈদ্যনাথপুর গ্রামে যাত্রা, হাউজি-বাম্পার, জুয়া ও অশ্লীল নৃত্য আয়োজনের জন্য প্যান্ডেল তৈরী করেছিল চিহ্নিত জুয়াড়ীরা। এর প্রতিবাদে তৌহিদী জনতার ব্যানারে ২৪ নভেম্বর পীরের বাজার সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় মাঠে এক প্রতিবাদ সভা করেন। প্রতিবাদ সভা চলাকালে ১৫টি মোটর সাইকেলে ৩০ জন বখাটে স্থানীয় পীরেরবাজারে মহড়া দেয়। এক পর্যায়ে উত্তেজিত মুসল্লিরা ৪টি মোটরসাইকেল পুড়িয়ে দেয়।

    ১ ডিসেম্বর সোমবার বিকাল সাড়ে পাঁচটায় শমশেরনগর বাজারে থেকে শমশেরনগরের রাজু মিয়া, হারুন মিয়া, কেছুলুটি গ্রামের জামাল খান, শিংরাউলী গ্রামের শেখ রাজু, পীরের বাজারের জামাল ও খলিল মিয়া, পীরেরবাজারে শাহীন আহমেদ ও সামাদ আলীকে মোটরসাইকেলসহ অপহরণ করেন। খবর পেয়ে তাৎক্ষণিক শমশেরনগর পুলিশ ফাঁড়ির উপ পরিদর্শক মতিউর রহমানের নেতৃত্বে পুলিশের একটি দল শমশেরনগর বাগান সড়কের সোহানের বাসা থেকে মোটরসাইকেলসহ অপহৃত শাহীন ও সামাদকে উদ্ধার করে।

    এ ঘটনায় পুলিশ সোহান ও রাজু মিয়া নামক ২ জনকে গ্রেফতার করে জেল হাজতে প্রেরন করছে। এ ঘটনায় কমলগঞ্জ থানায় একটি মামলা দায়ের হয়েছে।