রাজধানীতে জামায়াত-শিবিরের আস্তানায় বিস্ফোরণ

    0
    242

    আমারসিলেট 24ডটকম,১০অক্টোবর :রাজধানীতে ফকিরাপুল এলাকার বুধবার রাত সাড়ে ৮টার দিকে ফকিরাপুল গরমপানির গলির ৭তলা বাসার চতুর্থ তলায় বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটেছে বলে জানা যায়। সুত্র মতে  দীর্ঘদিন ধরেই বাসাটি জামায়াত-শিবিরের আস্তানা হিসেবে ব্যবহৃত হয়ে আসছিল।ঘটনায় কোনো হতাহতের খবর পাওয়া যায়নি। পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে বেশ কয়েকটি অবিম্ফোরিত হাতবোমা, কয়েকশ জর্দার কৌটা, বোমা তৈরির বিম্ফোরক, জামায়াতে  ইসলামীর সিডি, বই এবং প্রেস লেখা বুলেট প্রুফ জ্যাকেট উদ্ধার করেছে। পুলিশের ধারণা, শিবির কর্মীরা বোমা তৈরির উদ্দেশ্যে ওই বাসায় বিস্ফোরক জড়ো করেছিল।

    মহানগর পুলিশের মতিঝিল বিভাগের উপ-কমিশনার আশরাফুজ্জামান বলেন, ফকিরাপুল গরমপানির গলি ১৯০/বি নম্বর বাসার চতুর্থ তলার ওই বাসাটি শিবিরের আস্তানা হিসেবে ব্যবহার করা হতে পারে। বৃহস্পতিবার শিবিরের পূর্বনির্ধারিত বিক্ষোভ কর্মসূচিতে নাশকতা চালানোর উদ্দেশ্যে তারা বোমা বানানোর সময় বিস্ফোরণ ঘটে বলে আলামত দেখে ধারণা করা হচ্ছে। তিনি আরও বলেন, বিস্ফোরণের পর বাসায় কাউকে পাওয়া যায়নি। বিস্ফোরণের পর দুর্বৃত্তরা দ্রুত পালিয়ে যায়।

    বাড়ির মালিক কামরুন্নাহার বলেন,  জামাল উদ্দিন নামে এক ব্যক্তি সাড়ে ১২ হাজার টাকায় বাসাটি ভাড়া নেন। ভাড়া নেওয়ার সময় জামাল জানিয়েছিলেন, স্ত্রী নিয়ে তিনি ওই বাসায় থাকবেন। গত নয় দিনে তার স্ত্রী বাসায় আসেননি। তবে জামালের সঙ্গে ২৪-২৫ বছরের এক যুবক থাকত।তিনি আরও জানান, জামাল আগের ভাড়াটে মিজানুর রহমানের ঘনিষ্ঠ ছিল। তার অনুরোধেই জামালকে ভাড়া দেওয়া হয়। ভাড়া নেওয়ার সময় সে নিজেকে ব্যবসায়ী পরিচয় দেয়। তার গ্রামের বাড়ি নোয়াখালীর সন্দ্বীপ বলে জানিয়েছিল। তবে মিজানুর রহমান বিডি ফুডে চাকরি করতেন বলে জানান।