শ্রীমঙ্গলে সিএনজি চালকের সততায় ফিরে পেল ২০ হাজার টাকা মুল্যের মোবাইল সেট

0
43
শ্রীমঙ্গলে সিএনজি চালকের সততায় ফিরে পেল ২০ হাজার টাকা মুল্যের মোবাইল সেট

শ্রীমঙ্গল প্রতিনিধি: শ্রীমঙ্গলের মৌলভীবাজা যাকর রোডস্থ সিএনজি ষ্ট্যান্ডের এক চালক কর্তৃক নিজের গাড়িতে কুড়িয়ে পাওয়া একটি মোবাইল সেট প্রকৃত মালিকের হাতে তুলে দিয়ে সততার এক উজ্জ্বল দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছেন। চালকের প্রফুল্ল মল্লিক, পিতা হরেন্দ্র মল্লিক, গ্রাম-ইছবপুর,শ্রীমঙ্গল, মৌলভীবাজার।

ঘটনাটি ঘটেছে (২০ এপ্রিল সন্ধ্যায়) শ্রীমঙ্গল থেকে মৌলভীবাজার সদর হাসপাতালে রোগী নিয়ে যাওয়ার সময়। জানা যায়,রাস্তা থেকে সিএনজি চালকের সিএনজিতে করে পা ভেঙে আহত এক ব্যক্তিকে মৌলভীবাজার সদর হাসপাতালে চিকিৎসার জন্য নিয়ে যাওয়ার সময় অসতর্ক অবস্থায় তার একটি নতুন মোবাইল সেট রেডমি-১২ (আনুমানিক মূল্য ২০ হাজার টাকা) চালকের গাড়িতে ফেলে রেখে যায়। সিএনজি চালক মৌলভীবাজার থেকে শ্রীমঙ্গল স্ট্যান্ডে ফিরে আসার সময় নতুন কোন যাত্রী গাড়িতে না ওঠার কারণে স্ট্যান্ডে এসে দেখে গাড়িতে একটি নতুন মোবাইল সেট!
এ বিষয়ে চালক প্রফুল্ল জানান, মোবাইল সেটটি দেখে আমি বুঝতে পারছি না এটি কার সেট হাতে নিয়ে আমার ষ্ট্যান্ডের চালকদের সাথে কথা বলেছি। এটির পাসওয়ার্ড থাকার কারণে কাউকে ফোন দিতে পারি না প্রায় ঘন্টা দেড় ঘন্টা পর একটি ফোন আসে তখন তাকে বলি যে, এটি আমার কাছে আছে আপনি এসে নিয়ে যান। তখন মোবাইলের মালিক আমার আশ্বাস হয়তো বিশ্বাস করতে পারেনি। তিনি বলেন আপনি কি আমার সেটটা আমাকে দিবেন? তখন আমি বললাম সেট যদি আপনাকে না দেই তাহলে এতক্ষণ আমি এটা খোলা রাখলাম কেন ? আপনি আসেন শ্রীমঙ্গল থানার সামনে।প্রায় দুই আড়াই ঘন্টা পর ওই রোগীকে রেখে রোগীর ছোট ভাই ইমন পিতা আনোয়ার মিয়া গ্রাম হাজিপুর,বরুনা-কালাপুর,শ্রীমঙ্গল। তিনি এসে তার ভাইয়ের সেটটি নিয়ে যান এ সময় ইমন বারবার ওই গাড়িচালককে বলেন ভাই আপনার প্রতি আমরা কৃতজ্ঞ। পরে ইমনের হাতে মোবাইল ফোনটি তুলে দিলে সে অত্যান্ত খুশি হয়ে সিএনজি চালককে জড়িয়ে ধরে বলেন ভাই আমরা কৃতজ্ঞ থাকব আপনার কাছে।
এসময় উপস্থিত ছিলেন, বুলবুল হোসেন, রমরঞ্জন দেব, মকবুল হাসান ইমরান, সঞ্জীব নন্দী মজুমদার, আনিসুল ইসলাম আশরাফীসহ প্রমুখ।