সরকারের সাড়া না পাওয়ায় উদ্যোগ ব্যর্থ:মির্জা ফখরুল

    0
    234

    আমারসিলেট 24ডটকম , ২৩সেপ্টেম্বর  : বিএনপির ভারপ্রাপ্ত মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন, জাতিসংঘের মহাসচিব বান কি মুন দুই দলের প্রতিনিধিকে নিউ ইয়র্কে আহ্বান জানিয়েছিলেন। কিন্তু সরকার আহ্বানে সাড়া না দেয়ায় চলমান সংকট সমাধান হয়নি বলে অভিযোগ করেন মির্জা ফখরুল। আজ দুপুরে নয়াপল্টনে বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে সংবাদ সম্মেলনে তিনি এসব বলেন।
    ফখরুল বলেন, আমরা শুরু থেকেই সংকট সমাধানে সংলাপের কথা বলে আসছি। আমরা এ ব্যাপারে আন্তরিকও। কিন্তু সরকারের সাড়া না পাওয়ায় সব উদ্যোগ ব্যর্থ হয়ে গেছে। জাতিসংঘ মহাসচিবের উদ্যোগও আওয়ামী লীগের কারণে ব্যর্থ হয়েছে বলেও দাবি করেন মির্জা ফখরুল ।
    বিএনপির কোনো প্রতিনিধিকে জাতিসংঘ সাধারণ পরিষদের অধিবেশনে আমন্ত্রণ জানানো হয়নি জাতিসংঘে বাংলাদেশের স্থায়ী প্রতিনিধি আব্দুল মোমেনের সংবাদ সম্মেলনে দেয়া এমন বক্তব্যের প্রতিক্রিয়ায় মির্জা ফখরুল বলেন, আব্দুল মোমেন সাহেবের এমন বক্তব্য দুঃখজনক, আমরা আশা করব একটি গুরুত্বপূর্ণ পদে থেকে আব্দুল মোমেন এ ধরনের বিভ্রান্তিকর বক্তব্য দেয়া থেকে বিরত থাকবেন।

    তিনি বলেন, জাতিসংঘের মহাসচিব বান কি মুন বাংলাদেশের চলমান সঙ্কট নিরসনে আওয়ামী লীগ ও বিএনপির দুইজন করে প্রতিনিধি অধিবেশন চলাকালে যোগ দিতে আমন্ত্রণ জানিয়েছেন, যাতে আওয়ামী লীগ সাড়া দেয়নি। তবে জাতিসংঘের অধিবেশনে প্রধানমন্ত্রী যে ভাষণ দেবেন তাতে দেশের চলমান সংকট সমাধানে সুস্পষ্ট সুপারিশ থাকবে বলে আশা প্রকাশ করেন মির্জা ফখরুল।
    স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীকে পরিশীলিত ভাষায় কথা বলার আহ্বান জানিয়ে ফখরুল বলেন, সমপ্রতি স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর মতো একজন উচ্চ শিক্ষিত ও দায়িত্বশীল মানুষ চেয়ারপারসন সম্পর্কে যে কুরুচিপূর্ণ অশালীন বক্তব্য দিয়েছেন তা রাজনৈতিক সংস্কৃতি বহির্ভূত ও অগণতান্ত্রিক। তার বক্তব্যে সরকারের অগণতান্ত্রিক ও স্বৈরতান্ত্রিক মনোভাব ফুটে উঠেছে বলেও মন্তব্য করেন ফখরুল।
    সংসদে যোগ দেয়ার বিষয়ে  ফকরুল সাংবাদিকদের বলেন, সংসদে বর্তমান সঙ্কট নিরসনে কোনো সম্ভাবনা নেই। আমরা এখনো আশা করবো, সরকারের শুভ বুদ্ধির উদয় হবে। চলতি অধিবেশনে নির্দলীয় সরকারের বিল এনে নির্বাচনকালীন সময়ে একটি নির্দলীয় নিরপেক্ষ সরকার প্রতিষ্ঠা করবে বলে আশা প্রকাশ করেন  তিনি।
    নির্বাচন কমিশনের (ইসি) নিরপেক্ষতা প্রসঙ্গে বিএনপির এই মুখপাত্র বলেন, বর্তমান ইসি নিরপেক্ষ নয়। এ কমিশন দিয়ে সুষ্ঠু জাতীয় নির্বাচন সম্ভব না। তিনি বলেন, সরকারের তৈরি বাংলাদেশ ন্যাশনালিস্ট ফ্রন্টের (বিএনএফ) মতো ভুঁইফোড় দলকে নিবন্ধন দিতে ইসি যে উদ্যোগ নিয়েছে, এক এগারোর সময় বিএনপিকে ভাঙতেও এমন উদ্যোগ নেয়া হয়েছিল।সরকার ইসিকে নিয়ন্ত্রণ করছে বলেও অভিযোগ করেন বিএনপির ভারপ্রাপ্ত মহাসচিব মির্জা ফখরুল ।