সিলেটে বান্ধবী’র ভাইকে রক্ত দিতে এসে দুই তরুণীকে ধর্ষনের মামলায় গ্রেফতার নাবিল

0
441

নূরুজ্জামান ফারুকী,বিশেষ প্রতিনিধিঃ সিলেট আবাসিক হোটেলে আটকে রেখে দুই তরুনীকে চাঞ্চল্যকর গণধর্ষণ মামলার পলাতক আসামী নাবিল রাজা চৌধুরী (৩৫) কে র‍্যাপিড এ্যাকশন ব্যাটালিয়ান র‍্যাব-৯ গ্রেফতার করেছে।

র‍্যাব সূত্র জানা যায়, গত ২৩ শে আগস্ট ২০২২ ইংরেজি তারিখে সিলেটে বান্ধবী’র ভাইকে রক্ত দিতে গিয়ে সু-কৌশলে দুই তরুণীকে সিলেটের জালালাবাদ থানাধীন পাঠানটুলাস্থ রাগীব-রাবেয়া মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের পার্শ্ববর্তী গ্রীন হিল আবাসিক হোটেলের ৪র্থ তলায় অবস্থিত দুটি কক্ষে নিয়ে রাতভর পালাক্রমে ধর্ষণ করে রক্তদানকারীরা। ধর্ষনের পূর্বে তাদের কাছে থাকা নগদ টাকা ও মোবাইল ফোন ছিনিয়ে নেয়। পরে পালাক্রমে তারা ধর্ষন করতে থাকে। ধর্ষনের পর
দুই তরুণীকে এক কক্ষে নিয়ে জোরপূর্বক তাদের কাছ থেকে ধষর্ণের কোন ঘটনা ঘটেনি মর্মে জবানবন্দি তাদের মোবাইলে ফোনে রেকর্ড করে রাখে।
উক্ত ঘটনার পর ওই দুই তরুণী অসুস্থ হয়ে পড়লে তাৎক্ষণিকভাবে তাদেরকে হাসপাতালে ভর্তি হয়ে চিকিৎসা শেষে ঘটনার ৫ দিন পর গত ২৮ আগষ্ট (রোববার) রাতে সিলেটের জালালাবাদ থানায় তারা বাদী হয়ে পৃথক দুটি মামলা দায়ের করে। চাঞ্চল্যকর এ ঘটনাটি বিভিন্ন মিডিয়ায় ফলাও করে গণমাধ্যমে সিলেটসহ দেশব্যাপী ব্যাপক আলোচনার সমালোচনার ঝড় ওঠে।
এরই প্রেক্ষিতে আসামীদেরকে আইনের আওতায় নিয়ে আসতে র‌্যাব-৯ গোয়েন্দা তৎপরতা জোরদার করে।
এরই ধারাবাহিকতায় প্রাপ্ত গোয়েন্দা তথ্যের ভিত্তিতে র‌্যাব-৯, ব্যাটালিয়ন সদর, সিলেট এর একটি আভিযানিক দল ১৪ অক্টোবর শুক্রবার এসএমপি-সিলেট’র কোতয়ালী থানাধীন এলাকায় অভিযান চালিয়ে সিলেট জেলার জালালাবাদ থানার জোরপূর্বক গণধর্ষণ ও চুরির সহায়তা মামলার এজাহারনামীয় আসামী সুনামগঞ্জ থানার হরিনাপাটি গ্রামের বর্তমান ঠিকানা-জালালাবাদ আ/এ (বাসা নং-৪৭/১০), ফরহাদ রাজা চৌধুরী’র পুত্র নাবিল রাজা চৌধুরী (৩৫)কে সিলেট এয়ারপোর্ট থানা এলাকা থেকে গ্রেফতার করতে সক্ষম হয়।
ঘটনার সাথে জড়িত অন্যান্য আসামীদের গ্রেফতারের লক্ষ্যে র‌্যাব-৯ এর চলমান গোয়েন্দা তৎপরতা ও অভিযান অব্যাহত রয়েছে বলে গণমাধ্যমকে নিশ্চিত করেন, সিলেট র‍্যাব-৯ সহকারী পুলিশ সুপার মিডিয়া অফিসার সোমেল মজুমদার।