৮ মার্চ বিশ্ব নারী দিবস

    1
    221

    আমারসিলেট টুয়েন্টিফোর ডটকম,০৭মার্চ,আলী হোসেন রাজনঃ প্রান্তিক চা শ্রমিক জনগোষ্ঠীর অনেকে জানে না নারী দিবস কি, এর তাৎপর্যই বা কি। অনেকে নারী দিবসের র‌্যালিতে গেলেও বেশীর ভাগ নারী শ্রমিক হাজিরি কাটা যাবে এই ভয়ে যায় না। চা বাগানের লেবার লাইনের চা শ্রমিকদের অধিকাংশ নারী জানে না ৮ মার্চ বিশ্ব নারী দিবস।  যারা জানে তাদের অনেকে হাজিরা ও রেশন হারানোর ভয়ে তারা নারী দিবসের অনুষ্ঠানসূচিতে অংশ করা থেকে বিরত থাকে।
    মৌলভীবাজার জেলায় ৯২টি চা বাগানে সুবিধা  বঞ্চিত সাড়ে ৬ লক্ষাধিক প্রান্তিক চা জনগোষ্ঠীর প্রায় অর্ধেকের বেশি নারী। সুবিধাবঞ্চিনার পাশাপাশি সমাজ থেকে বিছিন্ন, তাই নারীদের অধিকার আদায়ের কোনো দিন আছে বলে জানে না তারা ।
    লেবার হাউজের কম্পিউটার অপারেটর স্বপ্না কানু জানান সব অফিস আদালতে সাপ্তাহিক ছুটি ভোগ করলেও বেতন ভাতার হেরফের হয় না, কিন্তু চা শ্রমিকরা সাপ্তাহিক এক দিন ছুটি ভোগ করলেও বন্ধের দিনে হাজিরা কেটে ৬ দিনের মজুরী ও রেশন প্রদান করা হয়।
    চা শ্রমিক ইউনিয়নের সাধারণ সম্পাদক রামভজন কৈরী জানান ২০০৯ সালের আগে কোন কমিটিতে নারীদের রাখা হত না। তখন থেকে বাগান পঞ্চায়েত কমিটি থেকে শুরু করে সব কমিটিতে ৩০ ভাগ নারীদের সংরক্ষিত পদ নিশ্চিত করে তাদেরকে অধিকার সচেতন করা হচ্ছে।